প্রচ্ছদ > ক্যারিয়ার > কাতারে নেওয়া হবে দেড় লাখ শ্রমিক
কাতারে নেওয়া হবে দেড় লাখ শ্রমিক

কাতারে নেওয়া হবে দেড় লাখ শ্রমিক

চলতি বছর প্রায় দেড় লাখ শ্রমিক নেবে কাতার। এমন আশাবাদ প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থানমন্ত্রী খন্দকার মোশাররফ হোসেনের। মধ্যপ্রাচ্যের দেশ কাতার সফর শেষে ইস্কাটনের প্রবাসী কল্যাণ ভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে মন্ত্রী এই আশাবাদ প্রকাশ করেন।  মধ্য প্রাচ্যের এই দেশটিতে এখন পর্যন্ত প্রায় ৩ লাখ ৬৯ হাজার ৫০১ জন পাঠানো হয়েছে। ২০১৪ সালে জনশক্তি রপ্তানি করে দেশটি থেকে রেমিটেন্স এসেছে প্রায় ২৮৪.২৯ মিলিয়ন ডলার। বাংলাদেশ থেকে প্রাথমিকভাবে ৫০ হাজার শ্রমিক নেওয়ার কথা কাতার ইতোমধ্যে নিশ্চিত করেছে। আগামী দুই থেকে তিন মাসের মধ্যে শ্রমিক পাঠানো শুরু হবে। এসব শ্রমিক শূন্য অভিবাসন ব্যয়ে যাওয়ার বিষয়েও কাতার সরকারের সঙ্গে কথা হয়েছে বলে জানান তিনি। বিদেশে জনশক্তি পাঠানোর জন্য জনশক্তি রপ্তানি ও প্রশিক্ষন ব্যুরোর যে ডেটাবেইস রয়েছে, সেখান থেকেই কাতারে শ্রমিক পাঠানো হবে।
প্রবাসী কল্যাণমন্ত্রীর নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল কাতার সফর করেন। চার দিনের এ সফরে কাতারের শ্রম ও সমাজকল্যাণমন্ত্রী আব্দুল্লাহ সালেহ মুবারাক আল খুলাইফির সঙ্গে বৈঠক হয় তাদের। খন্দকার মোশাররফ বলেন, ২০২২ সালের বিশ্বকাপ ফুটবল প্রতিযোগিতার জন্য বাংলাদেশ থেকে আরও বেশি সংখ্যক শ্রমিক নিতে আগ্রহ দেখিয়েছেন কাতারের মন্ত্রী।
খন্দকার মোশাররফ হোসেন জানান, নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠানই শ্রমিকদের সব খরচ বহন করবে। আগে বিদেশ যেতে হলে একজনকে যে তিন/চার লাখ টাকা খরচ করতে হত, এখন আর সেটি লাগবে না। কাতার থেকে যখন চাহিদাপত্র আসবে তখন ডেটাবেইস থেকে লটারি করে চাহিদার তিন গুণকে বাছাই করা হবে। এরপর নিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান তাদের সাক্ষাৎকার নিয়ে চূড়ান্ত বাছাইয়ের কাজটি করবেন।

Comments

comments

Comments are closed.