প্রচ্ছদ > ক্যারিয়ার > ক্যাশ অফিসার নেবে বাংলাদেশ ব্যাংক
ক্যাশ অফিসার নেবে বাংলাদেশ ব্যাংক

ক্যাশ অফিসার নেবে বাংলাদেশ ব্যাংক

২০১২ সালে প্রথমবারের মতো ক্যাশ অফিসার পদে সরাসরি নিয়োগ দেয় বাংলাদেশ ব্যাংক। এ বছর নেওয়া হবে শতাধিক কর্মকর্তা। অনলাইনে আবেদন করা যাবে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। বিস্তারিত জানাচ্ছেন রায়হান আহমদ আশরাফী

বাংলাদেশ ব্যাংকের মহাব্যবস্থাপক আবু ফরাহ মো. নাসের জানান, যেকোনো বিষয়ে স্নাতকোত্তর বা চার বছরমেয়াদি স্নাতক ডিগ্রি থাকলে ক্যাশ অফিসার পদে আবেদন করা যাবে। শিক্ষাজীবনে কমপক্ষে একটি প্রথম বিভাগ বা শ্রেণি থাকতে হবে, কোনো তৃতীয় বিভাগ থাকা যাবে না। এসএসসি ও এইচএসসি পরীক্ষার ক্ষেত্রে জিপিএ ৩.০০ বা তদূর্ধ্ব প্রথম বিভাগ, জিপিএ ২.০০ থেকে ৩.০০-এর কম দ্বিতীয় এবং জিপিএ ১.০০ থেকে ২.০০-এর কম হলে তৃতীয় বিভাগ হিসেবে ধরা হবে। বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্ষেত্রে ৪ পয়েন্ট স্কেলে ৩.০০ বা তদূর্ধ্ব প্রথম, ২.২৫ বা তদূর্ধ্ব কিন্তু ৩.০০-এর কম দ্বিতীয় বিভাগ, ১.৬৫ বা তদূর্ধ্ব কিন্তু ২.২৫-এর কম তৃতীয় বিভাগ ধরা হবে। ৫ পয়েন্ট স্কেলে সিজিপিএ ৩.৭৫ বা তদূর্ধ্ব প্রথম বিভাগ, ২.৮১৩ বা তদূর্ধ্ব কিন্তু ৩.৭৫-এর কম হলে দ্বিতীয় এবং ২.০৬৩ বা তদূর্ধ্ব কিন্তু ২.৮১৩-এর কম হলে তৃতীয় বিভাগ ধরা হবে। ৩ সেপ্টেম্বর ২০১৫ তারিখে আবেদনকারীর বয়স সর্বোচ্চ ৩০ বছর হতে হবে। তবে মুক্তিযোদ্ধা, শহীদ মুক্তিযোদ্ধার সন্তান এবং প্রতিবন্ধী প্রার্থীদের বয়সসীমা ৩২ বছর।

আবেদনের নিয়ম
অনলাইনে www.bb.org.bd ওয়েবসাইটের মাধ্যমে আবেদন করতে হবে। আবেদনের বিস্তারিত নিয়ম পাওয়া যাবে ওয়েবসাইটে। অনলাইনে প্রয়োজনীয় তথ্য দিয়ে আবেদন ফরম সাবমিট করার পর প্রাপ্ত ট্রাকিং নম্বরটি সংগ্রহে রাখতে হবে।
চাকরিরত প্রার্থীদের আবেদন করতে হবে কর্তৃপক্ষের অনুমতিসহ। প্রাথমিকভাবে কোনো কাগজপত্র জমা দিতে হবে না। লিখিত পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র পাঠাতে হবে।

নিয়োগ পরীক্ষা
বাংলাদেশ ব্যাংকের ডেপুটি জেনারেল ম্যানেজার (মানবসম্পদ) নুরুল আমিন জানান, নিয়োগ পরীক্ষা দুই ধাপে নেওয়া হয়। একই দিনে প্রথমে ১০০ নম্বরের বহু নির্বাচনী এবং পরে ২০০ নম্বরের লিখিত পরীক্ষা হয়। বহু নির্বাচনী পরীক্ষায় বাংলা, ইংরেজি, গণিত, অ্যানালিটিক্যাল অ্যাবিলিটি, সাধারণ জ্ঞান এবং তথ্যপ্রযুক্তি থেকে প্রশ্ন আসে।
বাংলায় ব্যাকরণ ও সাহিত্য থেকে প্রশ্ন থাকে। সাহিত্য অংশে কবি ও সাহিত্যিকদের জীবনী, কবিতার পঙক্তি, ব্যাকরণ অংশে সমাস, কারক, সন্ধিবিচ্ছেদ, শুদ্ধ-অশুদ্ধ নির্ণয়, প্রবাদ-প্রবচন, এককথায় প্রকাশ, সমার্থক ও বিপরীতার্থক শব্দ, বাগধারা ও পরিভাষা থেকে প্রশ্ন আসে।
ইংরেজিতে Verb, Preposition, Phrase and Idioms, Synonym, Antonym, Clause, Completing Sentence ও ইংরেজি সাহিত্যের ওপর প্রশ্ন থাকে। গণিত অংশে পাটিগণিত ও বীজগণিতের পাশাপাশি অ্যানালিটিক্যাল অ্যাবিলিটি থেকেও প্রশ্ন থাকে। সাধারণ জ্ঞান অংশে বাংলাদেশ ও আন্তর্জাতিক বিষয়াবলি, ব্যাংকিং ও অর্থনীতি, কম্পিউটার ও তথ্যপ্রযুক্তি বিষয়ে প্রশ্ন থাকে। ব্যাংকে কর্মরতদের বিভিন্ন বিষয়ে নোট বা চিঠি লিখতে হয়। তাই নিয়োগ পরীক্ষায় লিখিত অংশের ওপর জোর দেওয়া হয় এবং লেখার দক্ষতা যাচাই করা হয়।
লিখিত পরীক্ষায় বাংলা অংশে অনুবাদ, পত্র, দরখাস্ত, ভাবসম্প্রসারণ, রচনা আসতে পারে। ইংরেজিতে Formal Letter, Informal Letter, Paragraph, Essay, Report Writing থাকে। ইংরেজি ও বাংলা রচনা, অনুচ্ছেদের জন্য বিশ্ব অর্থনীতি, ব্যাংকিং এবং সাম্প্রতিক বিষয়ের ওপর গুরুত্ব দিতে হবে। গণিতে পাটিগণিতের ঐকিক নিয়ম, অনুপাত, ভগ্নাংশ, সুদকষা, লাভ-ক্ষতির হিসাব, বীজগণিতে গাণিতিক ধারা, বহুপদী, জ্যামিতির কোণ নির্ণয়ের প্রশ্ন বেশি থাকে।

সহায়ক যত
বাংলা, গণিত ও ইংরেজির জন্য মাধ্যমিক পর্যায়ের বই পড়তে হবে। অ্যানালিটিক্যাল অ্যাবিলিটির জন্য আইবিএ ও এমবিএ ভর্তি গাইড পড়তে হবে। জিআরই, জিম্যাট বইও এ ক্ষেত্রে সহায়ক হবে। সাধারণ জ্ঞানের জন্য সাম্প্রতিক তথ্যভিত্তিক মাসিক পত্রিকা, সংবাদপত্র ও সাধারণ জ্ঞানের বই পড়তে হবে। বাজারে বেশ কিছু প্রকাশনীর বাংলাদেশ ব্যাংক রিক্রুটমেন্ট গাইড পাওয়া যায়। ব্যাংক জব সলিউশন থেকে বিগত বছরের প্রশ্নপত্র সমাধান করলে কাজে দেবে।

 

Comments

comments

Comments are closed.