প্রচ্ছদ > বিনোদন > আনন্দালোকে > চ্যানেল আই’তে ঈদের ভিন্নধর্মী অনুষ্ঠানে ডা. মুরাদ হাসান
চ্যানেল আই’তে ঈদের ভিন্নধর্মী অনুষ্ঠানে ডা. মুরাদ হাসান

চ্যানেল আই’তে ঈদের ভিন্নধর্মী অনুষ্ঠানে ডা. মুরাদ হাসান

Dr Murad Hasan MP‘ভালোবাসার বাংলাদেশ’ শিরোনামে চ্যানেল আই প্রতি বছর রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বদের নিয়ে আয়োজন করে ভিন্নধর্মী এক ম্যাগাজিন  অনুষ্ঠানের। যেখানে রাজনৈতিক ব্যক্তিত্বরা গতানুগতিক রাজনৈতিক জীবনের বাইরে এসে পরিবেশন করেন মিশে যান মাটি ও মানুষের সঙ্গে। এ বছর ঈদের দিন এবং এর পরের দিন রাত ১২টায় ‌চ্যানেলটিতে প্রচারিত হবে রাজনীতিবিদ, তাঁদের পরিবারের সদস্য ও বিশিষ্টজনদের অংশগ্রহণে ম্যাগাজিন অনুষ্ঠান ‘ভালোবাসার বাংলাদেশ’। এই অনুষ্ঠানে থাকছে গান, কবিতাসহ অনেক কিছু নিয়ে মনোজ্ঞ পরিবেশনা। উপস্থাপনা ও পরিচালনা করেছেন জিল্লুর রহমান।
ভালোবাসার বাংলাদেশ অনুষ্ঠানে জনপ্রিয় সঙ্গীত শিল্পী, সুরকার লাকি আকন্দের অনন্যসাধারণ গান ‘আমায় ডেকোনা-ফেরানো যাবে না, ফেরারি পাখিরা কুলায় ফেরে না’ গাইবেন জামালপুর-৪ আসনের সাবেক এমপি ডা. মুরাদ হাসান।
অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক এমপি, ইস্রাফিল আলম এমপি, সাবেক এমপি নাজমা আক্তার, জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবং প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ দূত হুসেইন মুহাম্মদ এরশাদ এমপিসহ আরো অনেকে।
ডা. মুরাদ হাসান বলেন, ‘খুব ছোটবেলা থেকেই আমি সংগীত অনুরাগী। ক্লাস ওয়ান বা টুতে পড়ার সময় প্রতিদিন বিকালে জামালপুর শিশু একাডেমিতে গিয়ে বসে থাকতাম আর তন্ময় হয়ে তবলা বাজানো শুনতাম। একদিন তবল শিক্ষক রামুদা বললেন তুমি তবল শিখতে চাও? দ্বিতীয়বার না ভেবেই বলেছিলাম, হ্যাঁ Dr Murad Hasan MP3উস্তাদজি। সেই থেকে শুরু তবল শেখা। টানা ৮ বছর ক্ল্যাসিকাল লেসন প্রথম রামুদা পরে শ্রী অবিনাশ গোস্বামী স্যারের কাছে। তবলের পাশাপাশি গানও শিখতাম।’
এসএসসির পর ঢাকা নটরডেম কলেজে ভর্তি হওয়ার পর ব্যান্ড সংগীতের সঙ্গে জড়িয়ে যান ডা. মুরাদ হাসান।  ১৯৯৪ সালে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজে পড়ার সময় গঠন করেন রক স্ট্রিট ব্যান্ড দল। সেখানে তিনি ছিলেন ভোকাল। প্রথম কনসার্ট জামালপুর পাবলিক হলে। এরপর ময়মনসিংহ, কিশোরগঞ্জ ও ঢাকার বিভিন্ন স্থানে প্রোগ্রাম করেছেন। নিজ ব্যান্ডের অ্যালবামের কাজ শুরু ১৯৯৭ সালে ও শেষ করেন ১৯৯৯ সালে।

Comments

comments

Comments are closed.