প্রচ্ছদ > তথ্যপ্রযুক্তি > জেনে রাখুন > বন্ধ হয়ে যাচ্ছে এমএসএন ম্যাসেঞ্জার
বন্ধ হয়ে যাচ্ছে এমএসএন ম্যাসেঞ্জার

বন্ধ হয়ে যাচ্ছে এমএসএন ম্যাসেঞ্জার

চিরতরে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে এক সময়ের জনপ্রিয় অনলাইনে ম্যাসেজ শেয়ারিং সেবা এমএসএন ম্যাসেঞ্জার। বিগত ১৫ বছর ধরে সেবাটি সারা বিশ্বের অসংখ্য মানুষের অভ্যাসে পরিণত হয়ে গিয়েছিল। তবে সময়ের পরিক্রমায় তাল মেলাতে না পেরে দীর্ঘ যাত্রার পর আগামী অক্টোবরের মধ্যে সেবাটি চিরতরে বন্ধ করে দিচ্ছে মাইক্রোসফট।

বিশ্বের অন্যান্য দেশে অনেক আগেই বন্ধ হয়ে গেছে এমএসএন ম্যাসেঞ্জার। বর্তমানে চীনে ব্যবহার করা গেলেও চলতি বছরের অক্টোবরের পর সেখানেও মিলবে না এ সেবা। পরিবর্তে ব্যবহার করতে হবে স্কাইপি।

মূলত মাইক্রোসফট এমএসএন ম্যাসেঞ্জারের প্রতিদ্বন্দ্বী স্কাইপিকে কেনার পর থেকে এক সময়ের তুমুল জনপ্রিয় এ সেবা অচল হতে শুরু করে। গত ২০১২ সালে স্কাইপি কেনার পর সফটওয়্যার জায়ান্টটি গত বছর এমএসএন ম্যসেঞ্জারের ব্যবহারকারীদের স্কাইপিতে বদলের কথা জানিয়েছিল। কিন্তু চীনে স্থানীয় কিউকিউ ম্যাসেঞ্জারের সঙ্গে প্রতিদ্বন্ধীতা করতে তা টিকিয়ে রাখা হয়েছিল।

কিন্তু আগামী অক্টোবরের ৩১ তারিখের মধ্যেই চীনেও সেবাটি বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে। তখন সেখানে এমএসএন ব্যবহারকারীরা নিজেদের স্কাইপিতে বদলি করে নিতে পারবেন।

উল্লেখ্য যে, ১৯৯৯ সালে এমএসএন বা উইন্ডোজ লাইভ উন্মুক্ত হয়। এওএলের জনপ্রিয় এআইএম সার্ভিসকে টেক্কা দিতেই এটিকে বাজারে আনে মাইক্রোসফট। ২০০৯ সালে উইন্ডোজ লাইভ সার্ভিসটি ৩৩০ মিলিয়ন গ্রাহকের মাইলফলক পেরিয়ে যায়। এদের মধ্যে একটা বড় অংশই ছিল ২০ বছরের নিচের গ্রাহক।

২০১২ সালে মাইক্রোসফট ৮.৫ বিলিয়ন ডলার খরচ করে স্কাইপি কেনার পর এমএসএনের গুরুত্ব কমে যায়। কেননা দ্রুত জনপ্রিয় হয়ে উঠা স্কাইপি ব্যবহারকারী ওই বছরই ৩০০ মিলিয়ন পূর্ণ হয়।

গত বৃহস্পতিবার বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদে জানা যায়, চীনের এমএসএন ব্যবহারকারীদের ই-মেইল পাঠিয়ে মাইক্রোসফট সেবাটি বন্ধের ও স্কাইপিতে বিনামূল্যে বদলির সুযোগ দেওয়ার খবর জানানো হয়।

 

Share and Enjoy !

0Shares
0 0

Comments

comments

Comments are closed.